IMG-LOGO

বৃহস্পতিবার, ৮ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

× Education Board Education Board Result Rajshahi Education Board Rajshahi University Ruet Alexa Analytics Best UK VPN Online OCR Time Converter VPN Book What Is My Ip Whois
নিউজ স্ক্রল
তিন ট্রিপে চলছে রাবির বাসগুলোরাবির উর্দু বিভাগের ফল বিপর্যয়, তদন্ত কমিটি গঠনচাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রতারক চক্রের মূলহোতা ও ম্যানেজারসহ আটক ৬একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন শুরু সিলেটে যাত্রীবাহী বাস থেকে ১০৫ রাউন্ড গুলি উদ্ধারবঙ্গোপসাগরে ঘূর্ণিঝড় ‘মানদৌস’ইউক্রেন যুদ্ধে নতুন বার্তা পুতিনেররাজশাহীতে রোটারির চার ক্লাবের জয়েন ক্লাব এ্যাসেম্বলি১৪ দল শোকজরোটারি ক্লাব অব পদ্মা রাজশাহীর ১৯তম ইন্সটলেশনপুলিশের বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ মির্জা ফখরুলেরমান্দা কৃষকলীগের সভাপতি ফিরোজ, সাধারণ সম্পাদক সেকেন্দারসিরিজ জয়ে টাইগারদের রাজশাহী জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের অভিনন্দনবাঘায় প্রতিপক্ষের মারধরে পায়ের হাঁড় ভাঙলো নারীররাজশাহীতে যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শহীদ মনির ৮৪তম জন্মদিন উদযাপন
Home >> >> চন্দননগর ইউপি নির্বাচনে আলোচনায় শিমুল

চন্দননগর ইউপি নির্বাচনে আলোচনায় শিমুল

ধূমকেতু প্রতিবেদক, নিয়ামতপুর : আগামী ২১ সালে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন। গত মার্চ মাসে কোভিড ১৯ করোনা মহামারির প্রকপ দেখা দিলে নিজ নিজ এলাকার প্রার্থীরা ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন মাস্ক বিতরণ, সচেতনতা বৃদ্ধি, স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার পরামর্শ ও প্রচার প্রচারণা নিয়ে।

ইউপি নির্বাচন ঘিরে আলোচনা এখন সবখানে। কে হচ্ছে চন্দন নগর ইউনিয়নের নৌকার মাঝি। এরই ধারাবাহিকতায় আলোচনায় উঠে এসেছেন সাবেক ছাত্রনেতা ক্বারী দেলোয়ার হোসেন শিমুল।

১৯৮৬ সালের ৫ই জুন, নিয়ামতপুর উপজেলার ২নং চন্দননগর ইউনিয়নে ৭ নং ওয়ার্ড চন্দন নগর (বেগুন বাড়ি) গ্রামে সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

জানা যায়, দেলোয়ার হোসেন শিমুল তার বাবার ফুপাতো ভাই অর্থাৎ তৎকালিন অত্র ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, চাচা, আব্দুর রহমানের হাত ধরে ২০০৩ সালে নিয়ামতপুর উপজেলার ২ নং চন্দননগর ইউনিয়নে ছাত্র লীগের সদস্য হিসেবে রাজনীতি শুরু করেন। ২০০৫ সাল থেকে ২০১৩ সাল পর্যন্ত উপজেলা ছাত্র লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এর দায়িত্ব পালন করেন। ২০১০ সালে নিয়ামতপুর কলেজ থেকে বিএসএস পাশ করেন। ২০১২ সালে রাজশাহী কলেজ থেকে রাষ্ট্র বিজ্ঞানে মাস্টার্স পাশ করেন এবং ২০১৭ সালে রাজশাহী আইন কলেজ থেকে এলএলবি পাশ করেছেন তিনি।

পরবর্তীতে ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা ও নির্বাচন পরিচালনা কমিটিতে স্বক্রিয় ভুমিকা পালন করায় ২০১১ সালের ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের পর ইউনিয়নে ভিজিএফ ভিজিডি বিতরণ কমিটিতে এমপির মনোনিত প্রতিনিধি হিসেবে জায়গা করে নেন শিমুল। ২০১৪ সালে দীর্ঘ দিন পরে উপজেলা ছাত্র লীগের সম্মেলন হওয়ায় নতুন নেতৃত্বের সৃষ্টি হয়।

এরপর দীর্ঘ ১১ বছর পর নিয়ামতপুর উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সম্মেলন প্রস্তুত কমিটিতে বিশেষ ভূমিকা রাখেন। ২০১৬ সালে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের আহŸায়ক কমিটিতে সক্রিয় ভূমিকা পালন করেন এরপর ঐ বছরের শেষের দিকে নিজ ইউনিয়ন চন্দন নগরের ৭ নং ওয়ার্ডের সদস্য হিসেবে যুবলীগের রাজনীতিতে প্রবেশ করেন দেলোয়ার হোসেন শিমুল।

২০১৪ সালে জামাত শিবিরের ও বিএনপির জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস, জালাও পোড়াও ও পাশবিকতার বিরুদ্ধে সকল অপশক্তিকে পরাজিত করতে ততকালীন আওয়ামী লীগের সকল সভা সমাবেশ সফল করার পেছনে ছিল শিমুলের অপুরনীয় ভূমিকা। তারপর ২০১৭ সালে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ছিলেন তিনি। বর্তমানে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এর দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি রাজনীতির পাশাপাশি সমাজের বিভিন্ন উন্নয়নমুলক কাজের সাথে জড়িত রয়েছেন। করোনাকালীন সময়ে এলাকারবাসীর জন্য তার ব্যক্তিগত অবদান ছিল অতুলনীয়। তিনি করোনা চলাকালীন সময়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনানুযায়ী ইউনিয়নে নেতাদের কর্মীদের নিয়ে বিভিন্ন গ্রাম ঘুরে ঘুরে দরিদ্র অসহায় কৃষক, দিন মজুর মানুষদের সেবা দিয়ে চলেছেন।

তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে উপজেলার মেধাবী শিক্ষার্থী ও এতিম গরীব অসহায় শিশু, মাদৃরাসার ছাত্র, নেতা কর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গদের মাঝে প্রায় ৩ হাজারেরও বেশি ‘বঙ্গবন্ধুকে জানো’ লিপলেট বিনামূল্যে বিতরণ করেছেন। যা এখনো বিভিন্ন দিবসগুলোতে বিতরণ অব্যাহত রয়েছে।

এছাড়াও তিনি নিজস্ব অর্থায়নে ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে স্কুল কলেজ মাদ্রাসা ও ক্লাবে প্রায় ১৫০০ ছাত্র ছাত্রীদের বিনামূল্যে রক্তের গ্রæপ পরীক্ষা ও সনদ প্রদান করেছেন। একাধিক মসজিদে করোনা সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি ও বাল্যবিবাহ বন্ধ এবং মাদক বিরোধী উঠান বৈঠক করেছেন।

৮ বছর ধরে ইউনিয়নের বিভিন্ন জায়গায় শিমুল সেবা সংঘের উদ্যোগে ফ্রী চক্ষু শিবির ক্যাম্প ও রক্তদানে সহযোগিতা সহ মেডিসিন ডা. দারা ফ্রি চিকিৎসা সেবা পরিচালনা করে অসহায় দরিদ্র মানুষের পাশে থাকার জন্য নিরলস ভাবে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

সামাজিক উন্নয়নমুলক কাজে ও অন্যায়ের প্রতিবাদে এবং গরীর অসহায় বঞ্চিত দের অধিকার আদায় এর জন্য সর্বদা প্রতিবাদী কন্ঠষ্বর ভদ্র মার্জিত ও ভালো দুর্নীতি মুক্ত পরপুকারী ব্যক্তিহিসেবে এলাকায় সুপরিচিত। তিনি ছাত্রজীবন থেকে যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের সকল অঙ্গ সংগঠনের সাথে ওতোপতো ভাবে জড়িত। শুধু তিনি নয় পুরো পরিবারও আওয়ামী লীগের পরিবার হিসেবে এলাকার সকলের কাছে পরিচিত। তিনি সর্ব প্রথম তার নিজ ইউনিয়নের দুটি কলেজে ছাত্র লীগের রাজনীতি শুরুর সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছেন এবং তার হাতে সুসংগঠিত হয়েছে ইউনিয়ন কৃষক লীগের সম্মেলন প্রস্তুতি।

তিনি ২নং চন্দন নগর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে জনপ্রিয়তার শীর্ষে আলোচনায় রয়েছেন। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে দাঁড়িয়েছেন তিনি।

চন্দন নগর ইউনিয়নের একাধিক ব্যক্তি জানান, এলাকার জনগণের বিপদাপদে পাশে থাকা, আর্থিক ও সামগ্রিক সহযোগিতা দরিদ্রদের আইনী সুবিধা পাইয়ে দেওয়া, ফ্রী চক্ষু শিবির ও চিকিৎসা সেবা এবং মাদক থেকে বিরত রাখতে খেলা ধুলায় যুবকদের মনোনিবেশ করতে সক্ষম হয়েছেন। আগামী ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে শিমুলকে চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চান তারা।

এলাকার শিক্ষিত সচেতন তরুণ প্রজন্মের একটায় দাবী চন্দন নগর ইউনিয়নকে আধুনিকায়ন করতে শিক্ষিত ও মার্জিত এবং তরুণ সমাজসেবক হিসেবে দেলোয়ার হোসেন শিমুল এর বিকল্প নেই বলেও জানান এলাকাবাসী।

এ ব্যাপারে দেলোয়ার হোসেন শিমুল বলেন, চেয়ারম্যান হওয়া বড় কথা নয়। আমি দলকে ভালবাসি, আমি ভালবাসি এ এলাকার অবহেলিত মানুষকে, তাই এলাকার মানুষের জন্য সবসময় কাজ করে যাই, সুখে দুখে তাদের বিপদে সহযোগিতার হাত বাড়াই।

তিনি আরও বলেন, যদি আমার নেতা নওগাঁ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, খাদ্যমন্ত্রী ও বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন চন্দ্র মজুমদারসহ চন্দন নগর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ এলাকার জনগণ আমাকে যোগ্য মনে করেন তবে আমার কোন আপত্তি নেই।

এদিকে ইউনিয়নের আরও সম্ভাব্য প্রার্থীরাও দলীয় নেতাদের সহযোগিতা পেতে বিরামহীন তৎপরতা অব্যাহত রেখেছেন।

ধূমকেতু নিউজের ইউটিউব চ্যানেল এ সাবস্ক্রাইব করুন

প্রিয় পাঠকবৃন্দ, স্বভাবতই আপনি নানা ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। যেকোনো ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন এই ঠিকানায়। নিউজ পাঠানোর ই-মেইল : dhumkatunews20@gmail.com. অথবা ইনবক্স করুন আমাদের @dhumkatunews20 ফেসবুক পেজে । ঘটনার স্থান, দিন, সময় উল্লেখ করার জন্য অনুরোধ করা হলো। আপনার নাম, ফোন নম্বর অবশ্যই আমাদের শেয়ার করুন। আপনার পাঠানো খবর বিবেচিত হলে তা অবশ্যই প্রকাশ করা হবে ধূমকেতু নিউজ ডটকম অনলাইন পোর্টালে। সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ নিয়ে আমরা আছি আপনাদের পাশে। আমাদের ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করার জন্য অনুরোধ করা হলো Dhumkatu news