IMG-LOGO

শনিবার, ২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৪ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

× Education Board Education Board Result Rajshahi Education Board Rajshahi University Ruet Alexa Analytics Best UK VPN Online OCR Time Converter VPN Book What Is My Ip Whois
নিউজ স্ক্রল
মহাদেবপুরে বেগুন খেতে পোকার আক্রমণকঙ্গনার বিরুদ্ধে বক্তব্য দিতে মুম্বাইয়ে হৃতিকবিশ্ব মুসলিম ব্যক্তিত্ব অ্যাওয়ার্ড পেলেন এরদোগানচুরির পর লেডি গাগার কুকুর উদ্ধারশিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলছে ৩০ মার্চসম্মিলিত প্রচেষ্টায় উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণ: প্রধানমন্ত্রীশিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত আসছেবাবরের ব্যাটিং তাণ্ডবে করাচির জয়অস্ত্র উঁচিয়ে এসেই ট্রাকচালককে গুলি, আটক ১আরিচা-কাজিরহাট রুটে ফের ফেরি চলাচল শুরুকুষ্টিয়ায় ময়লার স্তূপে গৃহবধূর লাশ, স্বামী পলাতক‘আওয়ামী রাজনীতির সাথে মহিলা আ.লীগ জড়িত’আরটিজেএ এর নির্বাচিত নেতৃবৃন্দকে ধূমকেতু নিউজের অভিনন্দনদুই হিজড়ার চাকরীর ব্যবস্থা করলেন রাজশাহী জেলা প্রশাসকগোমস্তাপুরে মহিলা মাদরাসার উদ্বোধন
Home >> >> বাঘায় জমি নিয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষে তিন নারীসহ আহত ৮

বাঘায় জমি নিয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষে তিন নারীসহ আহত ৮

ধূমকেতু প্রতিবেদক, বাঘা : রাজশাহীর বাঘায় জমি-জমা নিয়ে স্বপন সাহা এবং উত্তম সাহা এই দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় তিন নারীসহ মোট ৮ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে ৬ জনকে স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে।

শনিবার সকাল ৯ টায় উপজেলার নারায়নপুর এলাকায় অবস্থিত কেন্দ্রীয় পুজা মন্ডপের পাশে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় উভয় পক্ষ থানায় পৃথক দুটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

আহতরা হলেন, স্বপন পক্ষের তিনি নিজে (৫১) ও তার বোন ছবি সাহা (৪৮), তুষার (২২) এবং জুথি সাহা (২০)। এদের প্রত্যেককে স্থানীয় বাঘা উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে তুষাদের বাম হাতে এবং পায়ে লাটির আঘাতে হাত ভেঙ্গে গেছে। তার অবস্থা আশংকা জনক। হাত প্লাস্টার করে সে এখন বিছানায় কাতরাচ্ছে। বাঁকি তিনজনও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

অপরদিকে উত্তম পক্ষে আহত হয়েছেন তার ছোট ভাই অপুর্ব সাহা(৪২), বিক্রম জিত সাহা(৪৮), বিদ্যুৎ সাহা(৩৫) এবং কবিতা সাহা (৪০)। এদের মধ্যে অপূর্ব এবং কবিতা সাহা সাময়িক চিকিৎসা নিয়ে হাসপাতাল ত্যাগ করেছেন। বাঁকি দু’জন হাসপাতালে ভতি রয়েছেন।

স্থানীয় লোকজন জানান, উপজেলার নারায়নপুর কেন্দ্রীয় পুজা মন্ডপ এর পাশে পল্লী চিকিৎসক শ্রী-উত্তম কুমার সাহা এবং তার চাচাতো ভাই শিক্ষক শ্রী-স্বপন সাহার সাথে জমি-জমা এবং পূজা মন্ডপে যাওয়ার রাস্তা নির্মান দিয়ে দির্ঘ দিন থেকে বিরোধ চলে আসছে। এই বিরোধকে কেন্দ্র করে সম্প্রতি বাঘা পৌর সভার মেয়র আব্দুর রাজ্জাক ও স্থানীয় রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ একটি (শালিস)আপোশ-মিমাংসা করে আসেন। সে মর্মে স্বপন সাহা তাঁর পুর্বের সীমানা প্রাচীর ভেঙ্গে পাঁচ ফিট দুরে নুতন করে কাজ শুরু করেন।

এ দিক থেকে উত্তম সাহাকে তার সীমানা প্রাচীরের প্রবেশ মুখে চার ফিট ভেঙ্গে সেটিকে সরিয়ে নতুন ভাবে প্রাচীর নির্মাণ করার নির্দেশ দেন শালিস বোর্ড। পরবর্তীতে স্বপন সাহা শালিসের নির্দেশ মেনে তাঁর প্রাচীর ভেঙ্গে নতুন করে কাজ শুরু করলেও উত্তম সাহা ও তার ভাই অপুর্ব সাহা স্থানীয় এক প্রভাবশালীর নেতৃত্বে সেটি আংশিক ভেঙ্গে কাজ বন্ধ রাখেন। এতে করে উভয় পক্ষে মধ্যে চাপা উত্তেজনা চলতে থাকে।

এদিকে উক্ত ঘটনা অবগত হয়ে গত তিনদিন পুর্বে সেখানে উপস্থিত হন বাঘা পৌর সভার মেয়র আব্দুর রাজ্জাক, প্যানেল মেয়র শাহিনুর রহমান পিন্টু, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াহেদ সাদিক কবির, বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ নজরুল ইসলাম এবং হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতা শী-অশিত কুমার ওরুপে বাকু পান্ডে।

তারা উত্তম সাহা এবং তার ভাই অপুর্ব সাহাকে অবিলম্বে শালিসের রায় মোতাবেক তাদের প্রাচীর সরিয়ে ফেলার নির্দেশ দেন। এ নির্দেশ তারা তাৎক্ষনাত মানলেও পরবর্তীতে মাত্র একজন লেবার নিয়ে নির্মিত প্রাচীরের উপর থেকে এক ফিট ভেঙ্গে কাজ বন্ধ করে দেন।

এ খবর শোনার পর শালিসের লোকজন স্বপন সাহাকে পুর্বের জায়গায় প্রাচীর নির্মানের অনুমতিদেন। সে মোতাবেক শনিবার স্বপন সাহা নতুন করে কাজ শুরু করতে গেলে অপুর্ব এবং তার ভাই উত্তম সাহা তাদের লোকজন নিয়ে অতর্কিত স্বপন সাহা এবং তার ভাতিজা তুষারের উপরে আক্রমন করে। এ সময় তার বোন ছবি সাহা ও ভাচতি জুথি এগিয়ে এলে উভয় পক্ষের মাধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

বাঘা পৌর মেয়র আব্দুর রাজ্জাকও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াহেদ সাদিক কবির জানান, আমরা ঘটনা স্থালে গিয়ে ছিলাম। পৌর সভা থেকে স্থানীয় লোকজন নিয়ে পুর্বে যে শালিস করা হয়েছিল সেটি স্বপন সাহা মানলেও উত্তম এবং তার ভাই অপুর্ব মানেননি। এ জন্য স্বপন সাহাকে পুবর্রে স্থালে কাজ করতে বলা হয়েছে। তবে কাজ করতে গেলে যে সংঘাতের ঘটনা ঘটবে এটা তারা বুজতে পারেনি। এ ঘটনায় বর্তমান প্রেক্ষ পটে শালিস বোর্ড এবং স্থানীয় লোকজন কেউই স্বপন সাহাকে দায়ি করেনি। বরং অভিযোগের তির ছুড়িছেন উত্তম সাহা পক্ষের লোকজনের উপর।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নজরুল ইসলাম জানান, উভয় পক্ষ থেকে অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

প্রিয় পাঠকবৃন্দ, স্বভাবতই আপনি নানা ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। যেকোনো ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন এই ঠিকানায়। নিউজ পাঠানোর ই-মেইল : dhumkatunews20@gmail.com. অথবা ইনবক্স করুন আমাদের @dhumkatunews20 ফেসবুক পেজে । ঘটনার স্থান, দিন, সময় উল্লেখ করার জন্য অনুরোধ করা হলো। আপনার নাম, ফোন নম্বর অবশ্যই আমাদের শেয়ার করুন। আপনার পাঠানো খবর বিবেচিত হলে তা অবশ্যই প্রকাশ করা হবে ধূমকেতু নিউজ ডটকম অনলাইন পোর্টালে। সত্য ও বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ নিয়ে আমরা আছি আপনাদের পাশে। আমাদের ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করার জন্য অনুরোধ করা হলো Dhumkatu news

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *